সংবাদ
Home » বাংলাদেশ » চকবাজার ট্রাজেডি : শিরোনাম ই কাঁদাবে আপনাকে

চকবাজার ট্রাজেডি : শিরোনাম ই কাঁদাবে আপনাকে

♥♥ভালবাসা♥♥

১. গর্ভবতী স্ত্রীকে নামতে পারেননি; তাই স্বামীও নামেননি!
বন্ধু ছিলেন রিয়া ও রিফাত। বন্ধুত্ব থেকে প্রেম। প্রেম থেকে বিয়ে করেন বছর দু’য়েক হলো! আর ক’দিন পরেই প্রথম সন্তানের মুখ দেখতেন তারা। সেই অপেক্ষায় প্রহর গুনছিলেন রিয়া। প্রথম বাবা হওয়ার উন্মাদনা কাজ করছিলো রিফাতের মধ্যেও।

চকবাজারের নন্দকুমার দত্ত রোডের ‘ওয়াহিদ ম্যানশন’ ভবনের তৃতীয় তলায় স্ত্রী রিয়াকে নিয়ে থাকতেন রিফাত। বুধবার রাতে আগুন লাগার পর অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীকে নিয়ে ভবন থেকে নামতে পারেননি; তাই নামেননি রিফাতও। গর্ভের সন্তানসহ দুজনেরই আগুনে পুড়ে হয়েছে করুণ মৃত্যু।

২. প্রতিদিনকার মতো চার বন্ধু আড্ডা দিচ্ছিলেন। চারটি পোড়াদেহ পড়ে আছে!

৩. প্রিয় সন্তান বাবার কাছে বিরিয়ানি খেতে চেয়েছে! বাবা বিরিয়ানি নিয়ে ফিরে এসে এখনো পাননি আদরের সন্তানকে!

৪. দুই ভাইয়ের জড়াজড়ি করা লাশ আলাদা করা যাচ্ছেনা। আলাদা করার পর তাদের বুকে জড়িয়ে ধরা শিশুর লাশ। শিশুকে বাচাঁনোর শেষ চেষ্টাই করছিলেন হয়তোবা!

৫. সন্তানের লাশ চাচ্ছে তার মা!
মা কাকুতি মিনতি করছেন—
যা পান; একটু মাংস হলেও; একটু হলেও দেন; একটু! আমার বাবারে আমি কোলে নিমু। আমার বাবার অনেক স্বপ্ন ছিলো; বিদেশ যাবে। ও নর্থ সাউথ এ পড়ে! আমার বাবারে আমি ডাকলে আসবে তো? যা পান আমার বাবার, একটু বের করে দেন!

৬. মৃত ভাইয়ের লাশ শনাক্ত করে বাবাকে ফোন দিয়ে বলছে ভাইয়ের লাশ পাবার কথা।

কতোটা দুর্বিষহ!!
কতোটা তুচ্ছ এ জীবনটা!!
আদরে জিইয়ে রাখা শরীরটা এভাবে বলি হয় যায়!!
ভাবা যায়না!!
একদম ভাবা যায়না!!
মনে করতেই গায়ে কাঁটা দিয়ে উঠছে বারবার!!
.

About ARIFUL ISLAM

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*